মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর 27, 2022

শেষ হলো ইপিএসের অস্থিরতাঃ বাজারে স্থিতি ফেরার ইংগিত

পুঁজিবাজার রিপোর্টঃ কোম্পানিগুলোর আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ শেষের সাথে শেষ হলো টানা দরপতনও। দরপতনের মধ্যে থাকা বাজার আজকের উত্থান দিয়ে যেন সংশোধন শেষেরই আভাস দিল। আগের দিন সূচকের যতটা পতন হয়েছিল, তার থেকেও বেশি উত্থান হয়েছে আজ, এক দিনে দর বেড়েছে প্রায় আড়াইশ কোম্পানির। পতনে ক্লান্ত বিনিয়োগকারীদের আজ যেন হাসির ঝলক দেখালো পুঁজিবাজার। আজকের উত্থানে মনের চাপ অনেকটাই কেটে গেছে তাদের।

টানা দরপতনের মধ্যে আজ মঙ্গলবার ডিএসইতে লেনদেন শুরু হয় বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর বাড়ার মাধ্যমে। ফলে ডিএসইতে লেনদেন শুরু হতেই প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স ২৮ পয়েন্ট বেড়ে যায়। লেনদেনের শুরুতে দেখা দেওয়া এই ঊর্ধ্বমুখী ধারা লেনদেনের শেষ পর্যন্ত অব্যাহত থাকে। এমনকি লেনদেনের শেষদিকে সূচকের ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা আরও বেড়ে যায়। এভাবে বেলা দেড়টার দিকে সূচক কাংঙ্খিত ৭০০০ পয়েন্ট ছুয়ে ফেলে। অবশ্য এই লেভেলে স্থায়ি হয়নি বাজার। ৭০০০ পয়েন্ট থেকে মাত্র আড়াই পয়েন্ট দূরে থেকেই শেষ হয় দিনের লেনদেন।

সে হিসেবে আজ ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ৭১ পয়েন্ট বেড়ে ৬ হাজার ৯৯৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অপর দুই সূচকের মধ্যে ৩০ ভালো কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচক ২৯ পয়েন্ট বেড়ে ২ হাজার ৫৮৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আর ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ১৫ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৪৯৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

আজ সুচকের সাথে লেনদেনও বেড়েছে বেশ খানিকটা। দিনভর ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৩৫২ কোটি টাকার। যেখানে আগের দিন লেনদেন হয় ১ হাজার ২১৫ কোটি টাকার। সে হিসাবে লেনদেন বেড়েছে ১৩৭ কোটি ৫৬ লাখ টাকা।

আজ ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ৩৮০টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ২৩৯টির, কমেছে ৯৫টির এবং আগের দিনের দর ধরে রেখেছে ৪৬টি কোম্পানি।

spot_img

অন্যান্য সংবাদ