সোমবার, অক্টোবর 3, 2022

ছয় মাসে আয় বেড়েছে ২০ শতাংশ

পুঁজিবাজার রিপোর্টঃ পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত তথ্যপ্রযুক্তি খাতের কোম্পানি ই-জেনারেশন লিমিটেডের চলতি হিসাব বছরের প্রথম ছয় মাসে (জুলাই-ডিসেম্বর) শেয়ার প্রতি আয় বেড়েছে ২০ শতাংশ। কোম্পানিটি চলতি হিসাব বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকের অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করলে এ তথ্য জানা যায়।

দ্বিতীয় প্রান্তিকে

সর্বশেষ প্রান্তিকে (অক্টোবর-ডিসেম্বর) কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় হয়েছে টাকা ৩৭ পয়সা, আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল টাকা ৩৬ পয়সা। এ হিসাবে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় বেড়েছে ১ পয়সা বা ৩ শতাংশ।

প্রথম ছয় মাসে

সেই হিসেবে চলতি হিসাব বছরের প্রথম ছয় (জুলাই-ডিসেম্বর) মাসে কোম্পানিটির কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় হয়েছে টাকা ৭৮ পয়সা, আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল টাকা ৬৫ পয়সা। এ হিসাবে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় বেড়েছে ১৩ পয়সা বা ২০ শতাংশ।
এ সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট পরিচালন নগদ প্রবাহ (NOCFPS) হয়েছে টাকা ২৬ পয়সা, যা আগের বছর একই সময়ে ছিল টাকা ৬০ পয়সা। অর্থ্যাৎ গত বছরের একই সময়ের চাইতে পার্থক্য ৩৪ পয়সা বা ৫৭ শতাংশ।
এই প্রান্তিক শেষে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য দাঁড়িয়েছে ২১ টাকা ১ পয়সা, যা আগের হিসাব বছরের শেষ দিন ছিল ২০ টাকা ৮৬ পয়সা। সে হিসাবে কোম্পানিটির সম্পদমূল্য শেয়ার প্রতি পার্থক্য ১৫ পয়সা, যা শতকরার হিসেবে ১ শতাংশ।

আজকের লেনদেন

ডিএসইতে সর্বশেষ কার্যদিবসে ই-জেনারেশনের লেনদেন শুরু হয় ৪৯ টাকা ৪০ পয়সায় এবং সর্বশেষ দশমিক ৮১ শতাংশ বা টাকা ৪০ পয়সা বেড়ে লেনদেন শেষ হয় ৪৯ টাকা ৮০ পয়সায়। শেয়ারটির দর ৪৯ টাকা ২০ পয়সা থেকে ৫২ টাকা ৪০ পয়সার মধ্যে ওঠানামা করে। এই কার্যদিবসে কোম্পানিটির ১ লক্ষ ৭৭ হাজার ৫৭০টি শেয়ার মোট ২২৩ বার হাতবদল হয়, যার বাজারদর ৮ টাকা ৮৪ পয়সা।

শেয়ার ধারণ

পুঁজিবাজারে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে তালিকাভুক্ত কোম্পানিটির ৩৭ দশমিক ৭৭ শতাংশ রয়েছে উদ্যোক্তা-পরিচালকদের হাতে। শূন্য শতাংশ শেয়ার রয়েছে সরকারের কাছে। এছাড়া ৩০ দশমিক ৯৬ শতাংশ প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারী, দশমিক ৪৫ শতাংশ বিদেশী ও বাকি ৩০ দশমিক ৮২ শতাংশ শেয়ার রয়েছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের হাতে।

spot_img

অন্যান্য সংবাদ